ঢাকা ০২:৩৬ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অনির্দিষ্টকালের জন্য পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা ভারতের

  • বার্তা কক্ষ
  • আপডেট সময় : ০৫:০৯:৫৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪
  • ৪৬ বার পড়া হয়েছে

অভ্যন্তরীণ বাজারে পেঁয়াজের সরবরাহ স্বাভাবিক রাখা এবং দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে রপ্তানির ওপর ন্যূনতম মূল্যের বিধিনিষেধ দিয়েছিল ভারত সরকার। আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত এ সিদ্ধান্ত বহাল রাখা হয়। এবার দেশটি জানাল, এই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ আরও বাড়ানো হয়েছে। তবে কতদিন নিষেধাজ্ঞা থাকবে, তা জানানো হয়নি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বলছে, পরবর্তি নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছে দেশটির বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। শুক্রবার এ সংক্রান্ত একটি আদেশ জারি করা হয়েছে।

আদেশে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডিরেক্টরেট জেনারেল অব ফরেন ট্রেড (ডিজিএফটি) বলছে, ৩১ মার্চ পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা ছিল। এই নিষেধাজ্ঞা আরও বাড়ানো হলো।

তবে, ৮ ডিসেম্বর ভারত হঠাৎ করেই ৩১ মার্চ পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধের ঘোষণা দেয়। এতে দেশের বাজারে দাম বাড়তে থাকে পণ্যটির। সে সময় দেশে ভারতীয় পেঁয়াজ বিক্রি হয় কেজিতে ১৬০ ও দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হয় ১৮০ টাকায়।

পরবর্তিতে গেল ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশসহ ৬ দেশে সীমিত পরিমাণে পেঁয়াজ রপ্তানির ঘোষণা দেয় ভারত। ভারতীয় গণমাধ্যমে বলা হয়, এসব দেশে সরকারি পর্যায়ে জিটুজি প্রক্রিয়ায় রপ্তানি করা হবে পেঁয়াজ।

এদিকে, ভারতের নাসিক থেকে ৫০ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমাদানি করছে সরকার। প্রথম ধাপে আগামী দুদিনের মধ্যে ১৬০০ মেট্রিক টন পেঁয়াজ দেশে আসবে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু।

শুল্ক অর্ধেক নেওয়ায় দেশে পেঁয়াজের দাম অনেক কমবে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী। এদিকে আমদানির খবরে বাজারে কমেছে পেঁয়াজের দাম।

বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু জানান, ভারত থেকে ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ আমদানির প্রক্রিয়া চলছে। চাহিদা ও সরবরাহের ভিত্তিতে পর্যায়ক্রমে এসব পেঁয়াজ আমদানি করা হবে। আগামী দুদিনের মধ্যে ১৬০০ টন দেশে আসবে।

ট্যাগস :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

আপলোডকারীর তথ্য

সেন্টমার্টিনে মিয়ানমারের গোলা পড়া বন্ধ করতে চেষ্টা চলছে: ওবায়দুল কাদের

অনির্দিষ্টকালের জন্য পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা ভারতের

আপডেট সময় : ০৫:০৯:৫৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪

অভ্যন্তরীণ বাজারে পেঁয়াজের সরবরাহ স্বাভাবিক রাখা এবং দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে রপ্তানির ওপর ন্যূনতম মূল্যের বিধিনিষেধ দিয়েছিল ভারত সরকার। আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত এ সিদ্ধান্ত বহাল রাখা হয়। এবার দেশটি জানাল, এই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ আরও বাড়ানো হয়েছে। তবে কতদিন নিষেধাজ্ঞা থাকবে, তা জানানো হয়নি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বলছে, পরবর্তি নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছে দেশটির বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। শুক্রবার এ সংক্রান্ত একটি আদেশ জারি করা হয়েছে।

আদেশে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডিরেক্টরেট জেনারেল অব ফরেন ট্রেড (ডিজিএফটি) বলছে, ৩১ মার্চ পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা ছিল। এই নিষেধাজ্ঞা আরও বাড়ানো হলো।

তবে, ৮ ডিসেম্বর ভারত হঠাৎ করেই ৩১ মার্চ পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধের ঘোষণা দেয়। এতে দেশের বাজারে দাম বাড়তে থাকে পণ্যটির। সে সময় দেশে ভারতীয় পেঁয়াজ বিক্রি হয় কেজিতে ১৬০ ও দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হয় ১৮০ টাকায়।

পরবর্তিতে গেল ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশসহ ৬ দেশে সীমিত পরিমাণে পেঁয়াজ রপ্তানির ঘোষণা দেয় ভারত। ভারতীয় গণমাধ্যমে বলা হয়, এসব দেশে সরকারি পর্যায়ে জিটুজি প্রক্রিয়ায় রপ্তানি করা হবে পেঁয়াজ।

এদিকে, ভারতের নাসিক থেকে ৫০ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমাদানি করছে সরকার। প্রথম ধাপে আগামী দুদিনের মধ্যে ১৬০০ মেট্রিক টন পেঁয়াজ দেশে আসবে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু।

শুল্ক অর্ধেক নেওয়ায় দেশে পেঁয়াজের দাম অনেক কমবে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী। এদিকে আমদানির খবরে বাজারে কমেছে পেঁয়াজের দাম।

বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু জানান, ভারত থেকে ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ আমদানির প্রক্রিয়া চলছে। চাহিদা ও সরবরাহের ভিত্তিতে পর্যায়ক্রমে এসব পেঁয়াজ আমদানি করা হবে। আগামী দুদিনের মধ্যে ১৬০০ টন দেশে আসবে।